ads

‘তুমি আমার সঙ্গে এটা কি করছ, এভাবে তুমি কত মেয়ের জীবন নষ্ট করবে?’ [ভিডিওসহ]

জেসিয়া ইসলাম

বিনোদন ডেস্ক, সংবাদ২৪.নেট : ‘মিস ওয়ার্ল্ড বাংলাদেশ’ জেসিয়া ইসলাম। ব্যক্তিগত জীবনে জনপ্রিয় ইউটিউবার সালমান মুক্তাদির তার ভালো বন্ধু। বৃহস্পতিবার সামাজিক যোগাযোগমাধ্যম ফেসবুকে ‘জেসিয়া ইসলাম’ নামে একটি অ্যাকাউন্ট থেকে স্ট্যাটাস দেওয়া হয়েছে।

 

 

এতে লেখা হয়েছে, ‘তুমি আমার সঙ্গে এটা কি করছ। আমি তোমাকে ক্ষমা করব না। তুমি আমার হৃদয় নিয়ে খেলছ, যেমন অন্য মেয়েদের নিয়ে খেল। এটা বন্ধ করো সালমান। এভাবে তুমি কত মেয়ের জীবন নষ্ট করবে?’

 

 

শুধু তাই নয় ফেসবুকে জেসিয়া-সালমানের কথোপকথনের স্ক্রিনশটের একটি ভিডিও পোস্ট করা হয়। এরপর সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে ভিডিওটি ভাইরাল হয়ে যায়। এ নিয়ে চলছে নানা সমালোচনা।

 

 

বিষয়টি নিয়ে মুখ খুলেছেন জেসিয়া ইসলাম। বর্তমানে তিনি যে ফেসবুক অ্যাকাউন্ট ব্যবহার করছেন সেটি থেকে এ বিষয়ে একটি ভিডিও বার্তা দিয়েছেন তিনি। এতে তিনি বলেন, ‘আমি জেসিয়া ইসলাম। সম্প্রতি একটি ভিডিও নিয়ে ভুল তথ্য ছড়াচ্ছে। এটা অনেকের কাছ থেকেই পাচ্ছি। এ বিষয়টি কয়েকটি ধাপে ব্যাখ্যা করছি।

 

 

এক. আমি যখন মিস বাংলাদেশে অংশ নিই তখনই আমার ওই অ্যাকাউন্টটি হ্যাক হয়ে যায়। আমার ধারণা, হ্যাক হওয়ার বিষয়টি ছোট বাচ্চারাও বুঝতে পারবে যে, এই অ্যাকাউন্ট আমি ব্যবহার করি আর ওটা ‘স্টুপিড পারসন’ (হ্যাকার) ব্যবহার করে।

 

 

দুই. এটা আমার খ্যাতি নষ্ট করার জন্য করা হয়েছে। তিন. ওই হ্যাকারের উদ্দেশ্যে বিশেষ কিছু বলতে চাই না। কারণ ভিডিওটির ৫৪ সেকেন্ডর মধ্যে বোঝা গিয়েছে সে কতটা ভুল। এটা আপনারাও প্রমাণ করে নিতে পারেন। চার. সর্বশেষ হলো এই অ্যাকাউন্টটি (যেটি থেকে ভিডিও বার্তা দেয়া হয়েছে) আমার। আমিই জেসিয়া ইসলাম।’

 

 

এদিকে সালমান মুক্তাদিরও তার ফেসবুক অ্যাকাউন্ট থেকে এ বিষয়ে একটি স্ট্যাটাস দিয়েছেন। তিনি জানিয়েছেন, জেসিয়ার খ্যাতি নষ্ট করার জন্য পরিকল্পিতভাবে কেউ কাজটি করেছে। সঙ্গে দুজনের হাসি-খুশি একটি ছবিও পোস্ট করেন তিনি।

 

 

 

জেসিয়ার ভিডিও বক্তব্য দেখতে ক্লিক করুন

 

 

 

Facebook Comments

এ সংক্রান্ত আরো খবর




সম্পাদক: আরিফা রহমান

২৮/এফ ট্রয়োনবী সার্কুলার রোড, ৫ম তলা, মতিঝিল, ঢাকা।
সর্বক্ষণিক যোগাযোগ: ০১৭১১-০২৪২৩৩
ই-মেইল ॥ sangbad24.net@gmail.com
© 2016 allrights reserved to Sangbad24.Net | Desing & Development BY Popular-IT.Com, Server Manneged BY PopularServer.Com