ads

মৃত ব্যক্তির বিচার: ময়মনসিংহের এসপিকে অব্যাহতি

আন্তর্জাতিক অপরাধ ট্রাইব্যুনাল

সংবাদ২৪.নেট ডেস্ক: মানবতাবিরোধী অপরাধের মামলায় ময়মনসিংহের ফুলবাড়ীয়া উপজেলার মৃত ওয়াজ উদ্দিনকে পলাতক দেখিয়ে বিচার শুরুর ঘটনায় নিঃশর্ত ক্ষমা চেয়ে অব্যাহতি পেয়েছেন ময়মনসিংহের পুলিশ সুপার (এসপি) নুরুল ইসলাম। ভবিষ্যতে এ ধরনের ঘটনার যাতে পুনরাবৃত্তি না ঘটে সে বিষয়ে সতর্কও করে দিয়েছেন আন্তর্জাতিক অপরাধ ট্রাইব্যুনাল।

একইসঙ্গে এ বিষয়ে পুলিশ মহাপরিদর্শকের (আইজিপি) দাখিলকৃত ব্যাখ্যা নিজ স্বাক্ষরে জমা না দেওয়ায় আগামী ১০ দিনের মধ্যে তা স্বাক্ষর করে পুনরায় জমা দেওয়ার নির্দেশ দিয়েছেন ট্রাইব্যুনাল।

বৃহস্পতিবার (১৬ ফেব্রুয়ারি) বিচারপতি শাহিনুর ইসলামের নেতৃত্বে দুই সদস্যের ট্রাইব্যুনাল এই আদেশ দেন। ট্রাইব্যুনালের অপর সদস্য হলেন বিচারপতি মো. সোহরাওয়ার্দী। আদালতে রাষ্ট্রপক্ষে শুনানি করেন প্রসিকিউটর সুলতান মাহমুদ সিমন।

গত ৩১ জানুয়ারি এ ঘটনায় ময়মনসিংহের এসপিকে তলব করেন ট্রাইব্যুনাল। একইসঙ্গে আইজিপিকে এ বিষয়ে লিখিত ব্যাখ্যা দিতে বলা হয়েছিল। সে অনুযায়ী ময়মনসিংহের এসপি আজ আদালতে হাজির হয়ে ট্রাইব্যুনালের রেজিস্ট্রারের মাধ্যমে নিঃশর্ত ক্ষমা চাইলে তাকে অব্যাহতি দেওয়া হয়।

এর আগে পলাতক আসামির মৃত্যুর সংবাদ গণমাধ্যমে প্রকাশের পর ১২ জানুয়ারি ক্ষোভ প্রকাশ করেন ট্রাইব্যুনাল। সেদিন বিষয়টি খতিয়ে দেখতে প্রসিকিউশনকে মৌখিক নির্দেশনা দেওয়া হয়। ওইদিনই ময়মনসিং জেলা পুলিশের বিশেষ শাখা (পুলিশ সুপার) কর্তৃক একটি প্রতিবেদন ট্রাইব্যুনালে পাঠানো হয়। যেখানে আসামি ওয়াজ উদ্দিনের মৃত্যুর বিষয়টি ট্রাইব্যুনালকে অবহিত করা হয়।

প্রতিবেদনে উল্লেখ করা হয়, ২০১৬ সালের ৭ মে ওয়াজ উদ্দিনের মৃত্যু হয়। এতে তার একটি মৃত্যু সনদও যুক্ত করা হয়েছে। মৃত্যুর আট মাস পর এই প্রতিবেদন দেওয়া হয়। দেখা যায় ওয়াজ উদ্দিনের মৃত্যুর সাত মাস পর ২০১৬ সালের ১১ ডিসেম্বর তার বিরুদ্ধে অভিযোগ গঠনের মাধ্যমে বিচার শুরু হয়।

একাত্তরের হত্যা, গণহত্যা মামলার আসামি ওয়াজ উদ্দিনের বিরুদ্ধে ২০১৪ সালের অক্টোবরে তদন্ত শুরু করে তদন্ত সংস্থা। এর বিরুদ্ধে ২০১৫ সালের ১১ আগস্ট গ্রেফতারি পরোয়ানা জারি করা হয়। শুরু থেকেই পলাতক দেখিয়ে তাকে ধরতে অভিযান অব্যাহত আছে বলেও পুলিশের রিপোর্টে বলা হয়।

গত ১১ ডিসেম্বর ওয়াজ উদ্দিনকে পলাতক ঘোষণা করে, তারপক্ষে রাষ্ট্রীয় খরচে আইনজীবী নিয়োগ দিয়ে বিচার শুরুর আদেশ দেন ট্রাইব্যুনাল। এই মামলার অপর আসামি রিয়াজ উদ্দিন ফকির কারাগারে আছেন।

Facebook Comments

এ সংক্রান্ত আরো খবর




সম্পাদক: আরিফা রহমান

২৮/এফ ট্রয়োনবী সার্কুলার রোড, ৫ম তলা, মতিঝিল, ঢাকা।
সর্বক্ষণিক যোগাযোগ: ০১৭১১-০২৪২৩৩
ই-মেইল ॥ sangbad24.net@gmail.com
© 2016 allrights reserved to Sangbad24.Net | Desing & Development BY PopularITLtd.Com, Server Manneged BY PopularServer.Com